Breaking News
Home / জেলা সংবাদ / কীর্তিপাশার ইউপি মেম্বার ও আনসার সদস্যের নেতৃত্বে হামলায় পিতা নিহত-পুত্র আহত ॥ আটক-১

কীর্তিপাশার ইউপি মেম্বার ও আনসার সদস্যের নেতৃত্বে হামলায় পিতা নিহত-পুত্র আহত ॥ আটক-১

ঝালকাঠি প্রতিনিধি :ঝালকাঠিতে  স্কুল ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচনে নিজের লোক পরাজিত হওয়ার ক্ষোভে ইউপি সদস্য হিরু মেম্বার ও আনসার সদস্য মামুন নেতৃত্বে হামলায় বিজয়ী সদস্য মো: শাহ আলম হাওলাদার (৫৫) নিহত হয়েছে। 
 ঝালকাঠি সদর উপজেলার কীর্তিপাশা ইউনিয়নের বেশাইনখান শহীদ স্মৃতি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সম্মুখের বাজারে মঙ্গলবার (১৯ এপ্রিল) রাত সাড়ে ৮টায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ রাতেই জিজ্ঞাসাবাদের জন্য জনৈক দুবাই প্রবাসীর  ইউপি সদস্য নিরু মেম্বারকে আটক করেছে ।
 নিহতের ছেলে রাকিব অভিযোগ করে বলেন, কদিন আগে থেকেই তার বাবা ও তাকে এই দলবল হুমকি-ধূমকি দিয়ে আসছিল। গত সোমবার অনুষ্ঠিত নির্বাচনে জনৈক দুবাই প্রবাসী সাইফুল ও ইউপি সদস্য নিরু মেম্বারের সমর্থিত প্রার্থীরা হেরে যায়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে পরদিন মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তাদের বাড়ির কাছে ৫/৭টি মটোরসাইকেলে মহড়া দিতে থাকে।
 রাতে সে ও তার পিতা তারাবি পরতে যাওয়ার পথে ইউপি সদস্য নিরু মেম্বার ও আনসার সদস্য মামুনের নেতৃত্বে নিলু, সয়সাল, রাসেল, রানা ও তাদের রাকিবের ওপর হামালা চালায়। এসময় বাবা শাহ আলম ছেলেকে রক্ষা করতে গেলে হামলাকারীদের এলোপাথারি মারধরে আহত হয়ে তিনি মাটিতে লুটিয়ে পড়ে মারা যান।
 এলাকাবাসী জানায়, নিহত মো: শাহ আলম হাওলাদার স্কুলটির ম্যনেজিং কমিটির নির্বাচনে গত সোমবার ভোটে অভিভাবক সদস্য পদে সর্বাধিক ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। নির্বাচনে জয়ের পর দিন মঙ্গলবার রাতে শাহ আলম ও ছেলে রাকিবের উপর সৎ চাচা সম্পর্ক্যরে ইউপি সদস্য হিরু মেম্বার, আনসার সদস্য মামুন ও নিলু তাদের দলবল নিয়ে হামলা চালায়। 
ঝালকাঠি সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসক এস.কে বড়াল জানান, শাহ আলমকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছে। শরীরে আঘাতের চিহ্ন দেখা যায়নি। তবে ময়নাতদন্তের পর মৃত্যুর সঠিক তথ্য জানা যাবে।
 এ ব্যাপারে সদর ওসি থানা মো: খলিলুর রহমান জানায়, মরদেহের ময়না তদন্তের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। এঘটনায় মামলা হয়নি। নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ করলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। তবে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একজনকে আটক করা হয়েছে।

About parinews