Breaking News
Home / জেলা সংবাদ / গাইবান্ধায় বিক্ষোভ মিছিল সমাবেশ

গাইবান্ধায় বিক্ষোভ মিছিল সমাবেশ

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধাঃবাংলাদেশের সাম্যবাদী আন্দোলনের এক বছর পূর্তি উপলক্ষে গাইবান্ধা জেলা শাখার উদ্যোগে বুধবার (৬ এপ্রিল) শহরে বিক্ষোভ মিছিল ও দলীয় কার্যালয়ের সামনে এক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশ শেষে চাল-ডাল-তেলসহ নিত্যপণ্যের দাম কমানোসহ শ্রমজীবি-নিম্ন আয়ের প্রত্যেক মানুষকে আর্মিরেটে রেশন সরবরাহের দাবিতে একটি বিক্ষোভ মিছিল শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে।সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সাম্যবাদী আন্দোলনের জেলা সদস্যসচিব মনজুর আলম মিঠু, সুন্দরগঞ্জ উপজেলা সমন্বয়ক বীরেন চন্দ্র শীল, সমাজতান্ত্রিক ক্ষেতমজুর ও কৃষকফ্রন্টের নেতা জাহিদুল হক, কৃষ্ণ চন্দ্র পাল, বাংলাদেশ নারীমুক্তি কেন্দ্রের জেলা সভাপতি অধ্যাপক রোকেয়া খাতুন, গণতান্ত্রিক ছাত্র কাউন্সিলের জেলা আহবায়ক শামিম আরা মিনা প্রমুখ। বক্তারা বলেন, সিন্ডিকেট ব্যবসায়িদের পাহারাদার বর্তমান সরকার চাল-ডাল-তেলসহ নিত্যপণ্যের দাম নিয়ন্ত্রণ করতে ব্যর্থ হয়েছে। কয়েক কোটি শিক্ষিত যুবক-যুবতি বেকার, নতুন কোন কর্মসংস্থান তৈরী দুরের কথা, পাটকল-চিনিকলসহ অনেক প্রতিষ্ঠান বন্ধ করা হচ্ছে।কৃষির সংগে যুক্ত ক্ষেতমজুরদের হাতে কোন কাজ নেই, কৃষকরা ফসলের ন্যায্যমূল্য পায়না, গার্মেন্টসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে কর্মরত শ্রমিক-কর্মচারীদের বেতন-ভাতা বাড়েনি। ফলে দেশে শ্রমজীবি-নিম্ন আয়ের মানুষের জীবন দুর্বীসহ হয়ে উঠেছে, পরিবারের সদস্যদের প্রয়োজনীয় খাবার জোগান দিতে পারছেনা, অনাহারে-অর্ধাহারে দিনাতিপাত করছে। শিক্ষাজীবন বিপর্যস্ত, করোনাকালে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় ধনীর সন্তানরা প্রাইভেট ও অনলাইন ক্লাসের মাধ্যমে কোন রকমে শিক্ষাজীবন সচল রাখলেও শ্রমজীবি-নিম্ন আয়ের মানুষ তা পারেনি। চিকিৎসা ব্যবসায়ীদের স্বার্থে সরকারী চিকিৎসা কেন্দ্রগুলো পুংগু করে রাখা হয়েছে। ফলে সাধারণ মানুষ বিনা চিকিৎসায় ধুকে ধুকে মরছে। আজ দেশে ঘুষ-দূর্নীতি-লুটপাট নিয়মে পরিণত হয়েছে। জনগণের ন্যায়সংগত আন্দোলনে দলীয় মাস্তান বাহিনী ও পুলিশ দিয়ে হামলা চালিয়ে এবং নেতা-কর্মীদের নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে দমন-পীড়ন করে ফ্যাসিবাদী শাসন কায়েম করেছে। দেশের এই সংকট মোকাবেলা বুর্জোয়া রাজনৈতিক দলগুলোর পক্ষে সম্ভব না, কারন বুর্জোয়া ব্যবস্থা এই সংকটের স্রষ্টা। এরা সিন্ডিকেট ব্যবসায়ী ও ঘুষখোর দুর্নীতিবাজদের পাহারাদার।

About parinews

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*