Breaking News
Home / জেলা সংবাদ / তেল সিন্ডিকেট না করতে ডিলারদের হুশিয়ারি:  জেলা প্রশাসনের আলোচনা

তেল সিন্ডিকেট না করতে ডিলারদের হুশিয়ারি:  জেলা প্রশাসনের আলোচনা

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধাঃকোনো ঘোষণা ছাড়াই গত কয়েকদিন আগে গাইবান্ধা শহরের  সব পেট্রোল পাম্প সহ  খুচরা দোকানে সংকট পড়ে  পেট্রোল ও অকটেন। এ জন্য শহরে পেট্রোল  ও অকটেন  সংকট দেখা দেয়। এতে করে দূর্ভোগ সহ  বিপাকে পড়েন গাইবান্ধার বিভিন্ন পেশার মানুষ সহ দূর দুরান্ত থেকে গাইবান্ধায় কাজে আসা পেট্রোল  নির্ভরশীল মটর সাইকেল সহ বিভিন্ন যানবাহন চালকরা। আর এই সংকট থেকে পরিত্রানের জন্য পদ্মা, মেঘনা, যমুনা ৩ কোম্পানির ডিলার সহ  মাম্প মালিকদের সাথে মতবিনিময় সভা করে গাইবান্ধা জেলা প্রশাসক মো: অলিউর রহমান। গাইবান্ধা জেলা প্রশাসনের আয়োজনে ১১ মে ২২ ইং তারিখ জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে সকালে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন-  গাইবান্ধা জেলা পুলিশ সুপার মুহাম্মদ তৌহিদুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট রবিউল ইসলাম, এনডিসি এস,এম ফয়েজ উদ্দিন, জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তর গাইবান্ধা সহকারি পরিচালক এম, আব্দুস সালাম, যমুনা অয়েল রংপুর এর বিক্রয় কর্মকর্তা সমীর কুমার পাল, মেঘনা পেট্রলিয়াম লিমিটেড  বগুড়া বিক্রয় উপ-ব্যবস্থাপক আব্দুস সাত্তার, গাইবান্ধা এস,এ কাদির এন্ড সন্স ফিলিং  এর প্রপাইটর শাহজাদা আনোয়ারুল কাদির, পেট্রোল পাম্প মালিক সমিতির সাধারন সম্পাদক শহিদুল ইসলাম বাবলা সহ অনেকে।পেট্রোল পাম্প মালিক সমিতির সাধারন সম্পাদক শহিদুল ইসলাম বাবলা বলেন- গাইবান্ধা জেলায় ১৭টি ফিলিং ষ্টেশন রয়েছে।  এগুলাতে পেট্রোল চাহিদা রয়েছে ৩৫০০ লিটার আর অকটেন  চাহিদা রয়েছে ১ হাজার লিটার। কিন্তু আমরা শতাধিক এর মধ্যে ৭৫পার্সেন্ট তেল ও অক্টেন পাচ্ছি। ২৫পার্সেন্ট কম পাওয়ায় আমরা ক্রেতাদের তেলের চাহিদা পুরন করতে পাচ্ছিনা।আলোচনা সভায় গাইবান্ধা পুলিশ সুপার! মুহাম্মদ তৌহিদুল ইসলাম”  তেল পাম্প মালিক ও ডিলারদের উদ্দেশ্যে বলেন-যানবাহনের জ্বালানি তেল মজুদ করে কৃত্রিম সংকট তৈরি করতে অসুদুপায় অবলম্বন না করতে  সতর্ক করেন। অন্যথায় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করবে বলে মতামত ব্যক্ত করেন। জেলা প্রশাসক অলিউর রহমান পেট্রোল সংকট নিরসনে পাম্প ও ডিলার মালিকদেরকে  খুচরা বিক্রেতাদের নিকট  ড্রামে পেট্রোল বিক্রির নির্দেশ দেন। সে সাথে পেট্রোল ও অকটেন গাইবান্ধায়  দ্রুত সরবরাহের জন্য উদ্বর্তন মহলে কথা বলবেন বলে জানান। বিসিবির কাছে কথা বলবেন বলে অবগত করেন।অন্যদিকে- ৪/৫ দিন পেট্রোল ও অকটেন আমদানি ও সরবরাহ বন্ধ থাকার পর গত দুদিন হলো এস,এ কাদির এন্ড সন্স এ অকটেন বিক্রি হচ্ছে। এবং আর রহমান সন্স এন্ড ফিলিং ষ্টেশনে পেট্রোল বিক্রি হচ্ছে বলে জানান সেলসম্যানরা।এ বিষয়ে এস,এ কাদির এন্ড সন্স ফিলিং ষ্টেশনের প্রপাইটর শাহজাদা আনোয়ারুল কাদির বলেন- ফুল এক গাড়ির স্থলে অর্ধেক গাড়ি পেট্রোল আজ পাওয়ার কথা রয়েছে। পেলে পেট্রোল বিক্রি শুরু হবে।

About parinews

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*